ব্রহ্মপুত্র ১ সপ্তাহে খেয়ে ফেলেছে রাজিবপুরের ৩টি গ্রাম

nodi.3.6আলতাফ হোসেন সরকার, রাজিবপুর (কুড়িগ্রাম) প্রতিনিধি :
ব্রহ্মপুত্রের ভয়াবহ ভাঙ্গনে এক এক করে হারিয়ে যাচেছ গ্রাম, ঘরবাড়ি ও ফসলি জমি ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। গত ৭ দিনে নদীগর্ভে হারিয়ে গেছে বল্লভপাড়া, তেররশিপাড়া, খাড়–ভাঁজ নামক তিনটি গ্রাম, মুন্সীপাড়া ও কোদালকাটি প্রাথমিক বিদ্যালয় আংশিকভাবে হারিয়ে গেছে কারিগড়পাড়া, শংকর মাদবপুর, উত্তর কোদালকাটি নামের আরও তিনটি গ্রাম। এতে প্রায় ৪শ’ পরিবার ঘরবাড়ি সরিয়ে অন্যত্র আশ্রয় নিয়েছে। কোদালকাটি বাজার থেকে বল্লভপাড়া পর্যন্ত সড়কের বেশিরভাগ অংশই বিলীন হয়ে গেছে। গ্রামবাসী জানান, ঈদের আগের দিন থেকে ব্রহ্মপুত্রের ভাঙ্গন ভয়াবহ রূপ ধারণ করেছে। যেভাবে ভাঙ্গছে তাতে বাকি অংশ বিলীন হতে পারে যে কোনো মুহূর্তে। ব্রহ্মপুত্রের এ তান্ডবলীলার চিত্র পাওয়া গেছে রাজিবপুর উপজেলার কোদালকাটি ইউনিয়নের ৩ কিলোমিটার এলাকাজুড়ে। সরেজমিন গতকাল মঙ্গলবার ওই এলাকায় গিয়ে দেখা গেছে, একদিকে নদী ভাঙ্গছে, আরেক দিকে ঘরবাড়ি সরিয়ে নিচেছ মানুষ। বল্লভপাড়া গ্রামের নয়ান আলী বলেন, ‘আমার বাড়ির ভিটার কোনো চিহ্নই নেই এহন। এক ঘণ্টার মধ্যে আমার বাড়িসহ আরও ১০টি বাড়ি ভাঙ্গছে। ঘরের খামখোটা নিয়া বাজারের পূর্বপাশে মাইনসের বাইত্তে রাখছি। জমি আলাক কইছি এক বছর থাকা নাগব।’ নয়ান আলীর মতো বল্লভপাড়া গ্রামের প্রায় অর্ধশত পরিবারের মধ্যে এখন একই অবস্থা বিরাজ করছে। তেররশিপাড়া গ্রামের জমশের আলী। তার বাড়ির ভিটা এখন ব্রহ্মপুত্র নদে। ঘরবাড়ি ভেঙ্গে নিয়ে আশ্রয় নিয়েছেন পাইকানটারি গ্রামের বাধে। একই রাস্তায় আশ্রয় নিয়েছেন বিধবা অমেলা বেগম। তিনি বলেন, ‘মাইনসেক কইয়া ঘরডা ভাইঙ্গা আনছি। এহন ঘর খাড়া করমু হেই ট্যাহাও নাই। চেয়ারম্যান-মেম্বাররাও আমগর দিকে দেহে না।’ তাদের মতো অসংখ্য পরিবার ঘরবাড়ি হারিয়ে এখন দিশেহারা হয়ে পড়েছে। এলাকার শিক্ষক আবদুল করিম জানান, ভাঙ্গনকবলিত গ্রামগুলোর মানুষ সবাই দিনমজুর পরিবার। তাদের মধ্যে এখন টাকা ও খাদ্যের অভাব দেখা দিয়েছে। কোদালকাটি ইউপি চেয়ারম্যান নজরুল ইসলাম জানান, গত এক সপ্তাহে তার এলাকার ৪শ’ পরিবার গৃহহীন হয়ে পড়েছে। এ তথ্যটি জেলা প্রশাসককে লিখিতভাবে জানানো হয়েছে। দ্রুত নদী ভাঙ্গা মানুষগুলোর মধ্যে সাহায্য দেয়ারও আবেদন জানানো হয়েছে।

Leave a Reply

You must be logged in to post a comment.

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি এইচ, এম রহিমুজ্জামান সুমন
সম্পাদক ও প্রকাশকঃ এস, এম নুরুল্ আমিন সরকার্
নির্বাহী সম্পাদকঃ নাজমুল হুদা পারভেজ
সম্পাদক কর্তৃক সারদা প্রেস, বাজার রোড, কুড়িগ্রাম থেকে মূদ্রিত ও উপজেলা পরিষদ মোড়, চিলমারী, কুড়িগ্রাম থেকে প্রকাশিত।
অফিসঃ উপজেলা পরিষদ মোড়, চিলমারী, কুড়িগ্রাম।
ফোনঃ ০৫৮২৫-৫৬০১৭, ফ্যাক্স: ০৫৮২৪৫৬০৬২, মোবাইল: ০১৭৩৩-২৯৭৯৪৩, ইমেইলঃ jugerkhabor@gmail.com
এই ওয়েবসাইট এর সকল লেখা,আলোকচিত্র,রেখাচ¬িত্র,তথ্যচিত্র যুগেরখবর এর অনুমতি ছাড়া হুবহু বা আংশিক নকল করা সম্পূর্ন কপিরাইট আইনে আইনত দন্ডনীয় অপরাধ।
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত যুগেরখবর.কম – ২০১৩-১৪