নাগেশ্বরীতে প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে ৪র্থ শ্রেণির ছাত্রীকে যৌন হয়রানি বিক্ষোভ; অবরুদ্ধ শিক্ষককে উদ্ধার করলো পুলিশ

নাগেশ্বরী (কুড়িগ্রাম) প্রতিনিধি: কুড়িগ্রামের নাগেশ্বরীতে প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে ৪র্থ শ্রেণির ছাত্রীকে যৌন হয়রানির অভিযোগে বিক্ষোভ করেছে এলাকাবাসী। এ সময় অভিযুক্ত প্রধান শিক্ষককে বিদ্যালয় কক্ষে অবরুদ্ধ করে রাখে উত্তেজিত অভিভাবকরা। পরে উপজেলা সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তা সংশ্লিষ্ট ইউপি চেয়ারম্যান এবং পুলিশের সাহায্য নিয়ে প্রধান শিক্ষককে মুক্ত করে উপজেলা অফিসে নিয়ে আসে। রোববার দুপুরে উপজেলার কালিগঞ্জ সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে এ ঘটনা ঘটে। সন্ধ্যায় বিষয়টি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কার্যালয়ে বসা হবে বলে জানিয়েছেন উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা।
যৌন হয়রানীর শিকার ছাত্রীর পিতা জানান, শনিবার পরীক্ষা চলাকালীন প্রধান শিক্ষক আফজাল হোসেন তার মেয়ের স্পর্শকাতর স্থানে হাত দেয়। পরে পরীক্ষা না দিয়ে ছাত্রীটি কেঁদে বাড়ি আসে। বাড়িতে গিয়ে বাবা-মাকে ঘটনাটি জানায়। বিষয়টি কয়েকজন শিক্ষার্থী দেখে ফেলে তারাও অভিভাবকদের জানান। রোববার এলাকবাসী স্কুল ঘেরাও করে। এ বিষয়ে ছাত্রী কথা বলতে গিয়ে কান্নায় ভেঙ্গে পড়েন। তার মা বলেন, আমরা হিন্দু মানুষ। মেয়েটা পরীক্ষা দিতে পারলো না। জীবনটা ধ্বংস হয়ে গেল।
স্থানীয়রা অভিযোগ করেন, এ প্রধান শিক্ষক এর আগে কয়েকবার এধরনের ঘটনা ঘটিয়েছিল। এবার আমরা তার বিচার চাই।
এই বিষয়ে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আফজাল হোসেন’র সাথে কথা বলতে চাইলে তিনি কথা বলতে রাজী হননি।
নাগেশ্বরী থানার এসআই মশিউর রহমান বলেন, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার ফোন পেয়ে শিক্ষা অফিস থেকে সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তাকে নিয়ে কালিগঞ্জ সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে গিয়ে অবরুদ্ধ প্রধান শিক্ষক আফজাল হোসেনকে অবমুক্ত করা হয়।
সংশ্লিষ্ট ক্লাস্টারের সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তা মোকছেদুর রহমান বলেন, পুলিশের সহায়তায় প্রধান শিক্ষককে মুক্ত করা হয়েছে। সন্ধ্যায় ইউএনও স্যারের সাথে বসার কথা রয়েছে।
উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা (টিও) মোসলেম উদ্দিন শাহ বলেন, ইউএনও স্যার জানানোর পর এক কর্মকর্তাকে পাঠানো হয়। বিষয়টি নিয়ে আলোচনায় বসার কথা হচ্ছে।
কালিগঞ্জ ইউপি চেয়ারম্যান মতিয়ার রহমান ব্যপারী বলেন, পরিস্থিতি উত্তপ্ত ছিল। সন্ধ্যায় শালিশ করতে চেয়ে পরিস্থিতি শান্ত করা হয়েছে। ইউএনও,শিক্ষা কর্মকর্তাদের নিয়ে বসা হবে।
উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আবু হায়াত মো. রহমতুল্লাহ বলেন, ছাত্রীর বাবা মৌখিকভাবে অভিযোগ করে। তার পরে উত্তেজনার সৃষ্টি হলে পুলিশ পাঠিয়ে পরিস্থিতি শান্ত করা হয়। সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাকে ব্যবস্থা নিতে নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

Leave a Reply

You must be logged in to post a comment.

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি এইচ, এম রহিমুজ্জামান সুমন
সম্পাদক ও প্রকাশকঃ এস, এম নুরুল্ আমিন সরকার্
নির্বাহী সম্পাদকঃ নাজমুল হুদা পারভেজ
সম্পাদক কর্তৃক সারদা প্রেস, বাজার রোড, কুড়িগ্রাম থেকে মূদ্রিত ও উপজেলা পরিষদ মোড়, চিলমারী, কুড়িগ্রাম থেকে প্রকাশিত।
অফিসঃ উপজেলা পরিষদ মোড়, চিলমারী, কুড়িগ্রাম।
ফোনঃ ০৫৮২৫-৫৬০১৭, ফ্যাক্স: ০৫৮২৪৫৬০৬২, মোবাইল: ০১৭৩৩-২৯৭৯৪৩, ইমেইলঃ jugerkhabor@gmail.com
এই ওয়েবসাইট এর সকল লেখা,আলোকচিত্র,রেখাচ¬িত্র,তথ্যচিত্র যুগেরখবর এর অনুমতি ছাড়া হুবহু বা আংশিক নকল করা সম্পূর্ন কপিরাইট আইনে আইনত দন্ডনীয় অপরাধ।
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত যুগেরখবর.কম – ২০১৩-১৪