তরুণীকে ধর্ষণ: ব্যবসায়ীপুত্র ইভান আটক

1499349373
যুগের খবর ডেস্ক: জন্মদিনের দাওয়াত দিয়ে তরুণীকে বাসায় নিয়ে ধর্ষণের অভিযোগে রাজধানীর বনানী থানায় দায়ের করা মামলায় ব্যবসায়ীর পুত্র বাহাউদ্দীন ইভানকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-১১। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় নারায়ণগঞ্জ থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। র‌্যাব-১১-এর অধিনায়ক লে. কর্নেল কামরুল হাসান জানান, ‘নারায়ণগঞ্জের মাসদাইর এলাকার এক আত্মীয়ের বাসা থেকে ইভানকে গ্রেফতার করা হয়।’ তবে, তিনি এ বিষয়ে বিস্তারিত কিছু জানাননি।
বনানীর রেইনট্রি হোটেলে দুই ছাত্রীকে ধর্ষণের চাঞ্চল্য কাটতে না কাটতে আবারো জন্মদিনের অনুষ্ঠানে ডেকে নিয়ে রাতভর এক তরুণীকে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেল। এবার মূল আসামি বনানীর ব্যবসায়ী বোরহানউদ্দিনের ছেলে বাহাউদ্দিন ইভান (২৮)। গত মঙ্গলবার রাতে বনানীর ২ নম্বর রোডের ২১৪ ন্যাম ভবনে ওই ধর্ষণের ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় গত বুধবার ধর্ষণের শিকার তরুণী বাদী হয়ে বনানী থানায় মামলা করেন। গতকাল বৃহস্পতিবার ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ওই তরুণীর ফরেনসিক পরীক্ষা সম্পন্ন হয়েছে।
মামলার একমাত্র আসামি বাহাউদ্দিন ইভানকে গ্রেফতারের খবর নিশ্চত করে র‌্যাব-১১-এর অধিনায়ক লে. কর্নেল কামরুল হাসান জানান, ‘নারায়ণগঞ্জের মাসদাইর এলাকার এক আত্মীয়ের বাসা থেকে ইভানকে গ্রেফতার করা হয়েছে।’ এর আগে গতকাল বনানীর ২ নম্বর রোডের ন্যাম ভবনের বাসায় অভিযান চালিয়েছে পুলিশ। দুপুর ১টার দিকে ডিবি পুলিশ ওই বাসায় যায়। তবে ভবনটি তালাবদ্ধ দেখে ফিরে আসেন তারা।
ধর্ষণের শিকার ওই তরুণীর করা মামলার বিবরণীতে জানা গেছে, অভিযুক্ত ইভান বিবাহিত এবং তার এক ছেলে ও এক মেয়ে রয়েছে। আর উত্তরাঞ্চলের একটি জেলার দ্বাদশ শ্রেণির পরীক্ষা দেওয়া তরুণীর বর্তমান বসবাস বারিধারা ডিওএইচএসে।
মামলার এজাহারে ওই তরুণী উল্লেখ করেছেন, ১১ মাস আগে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে তাদের বন্ধুত্ব হয়। এর সূত্র ধরেই তাদের দেখা-সাক্ষাৎ হতো এবং ঘোরাঘুরি করতেন।চার মাস আগে তাদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। ঘটনার দিন রাত ৯টায় ইভান ফোন করে ওই তরুণীকে জন্মদিনের কথা বলে তার বাসায় যেতে বলেন এবং বলেন, তার মায়ের সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দেবেন। এজাহারে তরুণী উল্লেখ করেন, ‘আমাদের সম্পর্কের বিষয়টি তাহার (ইভান) মাকে জানাবে মর্মে জানায় এবং টেলিফোনে তাহার মায়ের পরিচয় দিয়ে একজন মহিলা আমার সঙ্গে কথা বলে আর আমি তাকে তাহার মা মনে করি। তারপর আমি আমার আপুর সঙ্গে কথা বলে রাত সাড়ে ১০টায় রিকশা করে তাহার বাসার সামনে পৌঁছালে সে আমাকে রিসিভ করিয়া তাহার বাসায় নিয়ে যায়।’
ওই তরুণী বাসায় গিয়ে আর কাউকে দেখেননি। জানতে চাইলে ইভান জানান, তার বাবা-মা অসুস্থ। তাই ঘুমিয়ে আছেন। জোরে কথা বলা যাবে না।
এজাহারে তিনি আরও উল্লেখ করেন, ‘বাসায় জন্মদিনের অনুষ্ঠানের কোনো আলামত দেখি না। আমি ভয় পাই এবং বাসায় আসতে চাই। কিন্তু সে (ইভান) বাসায় আসতে দেয় না। সে আমাকে রাতে খাবার খাওয়ায় এবং নেশাজাতীয় দ্রব্য খাওয়ায়। আমি তাকে নিষেধ করিলে সে একদিন খেলে কিছু হবে না মর্মে জানায়।’ এরপর রাত দেড়টায় ইভান তাকে ধর্ষণ করে বলে তরুণী এজাহারে উল্লেখ করেছেন। তিনি আরো বলেন, ‘আমি চিৎকার করিতে থাকিলে সে রাত সাড়ে তিনটায় আমার ব্যাগ রেখে আমাকে বাড়ি থেকে বের করে দেয়।’
তরুণীর ভাষ্যে, ‘ব্যাগে তিনটা ড্রেস- দুইটা জিনস, একটা কুর্তা, তিনটি মোবাইল, চার্জার, সিম কার্ড, মেমোরি কার্ড ও নগদ ১৫ হাজার টাকা ছিল।’
বাসা থেকে রাতে বের করে দেওয়ার পর পথচারী ভদ্রলোকের সহায়তায় তিনি থানায় আসেন বলেও উল্লেখ করেন। এজাহারে তরুণী আরো বলেন, ‘আসামি আমাকে এর আগেও বিবাহের প্রলোভনে ধর্ষণ করে। আমাকে ভয় দেখায়, মুখ খুলিলে তাহার নিকট আছে এমন খারাপ ভিডিও ইন্টারনেটে ছড়িয়ে দিবে।’ কিছুটা সুস্থ হয়ে এবং আত্মীয়-স্বজনের সঙ্গে কথা বলে এজাহার দিতে দেরি হয়েছে বলেও উল্লেখ করেন তরুণী।
স্থানীয় সূত্র বলছে, ইভান বনানীর ২ নম্বর রোডের ৫/এ ন্যাম ভিলেজের বি-১ ফ্ল্যাটে থাকেন। তার বাবা বোরহান উদ্দিন বেলাল একজন ব্যবসায়ী। বনানীতে তার বেশ কয়েকটি দোকান রয়েছে। বাবার সঙ্গে ইভানও তার ব্যবসা দেখাশুনা করতেন। ইভানের স্ত্রী ও দুই সন্তান রয়েছে। তিন ভাইয়ের মধ্যে ইভান বড়। মা-বাবাসহ তারা সবাই একসঙ্গে থাকতেন। ন্যাম ভিলেজের ওই ভবনের সঙ্গেই ২৯৮ নম্বর নাজভীন ভিলা (ইতি) ইভানদের নিজস্ব বাড়ি। ছয় মাস আগে তারা ন্যাম ভিলেজের বাসায় ভাড়া ওঠেন। ইভান সব সময় বেপরোয়া জীবনযাপন করতেন। মাদকসেবী ছিলেন। সব সময় নিশান জিপ ও দামি মোটরসাইকেল নিয়ে ঘুরতেন। মাদকাসক্ত ইভানের আচরণ ও কথাবার্তা ছিল উদ্ভট প্রকৃতির।
বনানী থানার ওসি (তদন্ত) আব্দুল মতিন জানান, তরুণীর লিখিত অভিযোগের পর থেকেই সাম্ভাব্য সব জায়গায় অভিযুক্ত ইভানকে খোঁজা হচ্ছিল। পুলিশের সঙ্গে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী অন্যান্য বাহিনীও তাকে খুঁজছিল। তিনি বলেন, ইভানকে পেতে প্রযুক্তির সাহায্য নেওয়া হয়েছে। তার মোবাইল ট্র্যাকিং করা হয়েছে। তিনি আরও জানান, ইভানের বাবার নাম বোরহানউদ্দিন। বনানীতে এই ব্যবসায়ীর একটি বিপণিবিতান রয়েছে। আর অভিযোগকারী তরুণী টিভি অভিনেত্রী বলে জানান পুলিশ কর্মকর্তা আব্দুল মতিন। ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের গুলশান জুনের সহকারী যুগ্ম কমিশনার মো. রাসেল গণমাধ্যমকে জানান, আসামি ইভানের খোঁজেই তারা ওই বাসায় গিয়েছিলেন।
সেখানে তারা ছিলেন আধাঘণ্টা। তিনি আরো জানান, বৃহস্পতিবার দুপুরে বাড়ির দ্বিতীয় তলার ইভানদের ফ্ল্যাটটি তালাবদ্ধ পাওয়া যায়। পাশের ফ্ল্যাটের লোকদের সঙ্গে কথা বলে তারা বের হয়ে আসেন। এর আগে সেই বাসার নিরাপত্তারক্ষী মাছুম জানান, সকাল থেকেই তাদের বাসা তালাবদ্ধ ছিল। ইভান ও তাদের পরিবার কখন বের হয়েছে সেই ব্যাপারে কেউ কিছু জানেন না। ‘ধর্ষণের আলামত পাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে’ বলে জানিয়েছেন ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ফরেনসিক বিভাগের প্রধান ডা. সোহেল মাহামুদ।
তিনি বলেন, ‘ধর্ষণের শিকার হওয়ার পর ওই তরুণী শর্ট টাইমের মধ্যে আমাদের কাছে এসেছেন। তিনি ধর্ষণের শিকার হওয়ার পর ৩৬ ঘণ্টার মতো সময় পার হয়েছে। যেহেতু  ৪৮ ঘণ্টা এখনও পার হয়নি, তাই এর মধ্যে কোনো কিছু ঘটে থাকলে আমরা পজিটিভ রিপোর্ট পাবো।’ বৃহস্পতিবার বেলা ১১টা থেকে দেড়টা পর্যন্ত পাঁচ সদস্যের মেডিকেল বোর্ড ওই তরুণীর পরীক্ষা-নিরীক্ষা সম্পন্ন করে। বোর্ডের সদস্যরা হলেন- ঢাকা মেডিকেল কলেজের ফরেনসিক বিভাগের প্রধান ডা. সোহেল মাহামুদ, ডা. প্রদীপ বিশ্বাস, ডা. মমতাজ আরা, ডা. রেজোয়ানা শারমিন ও ডা. কবীর সোহেল।
পরীক্ষা শেষে ফরেনসিক বিভাগের প্রধান ডা. সোহেল মাহামুদ বলেন, ‘ধর্ষণের শিকার ওই তরুণীর বেশ কয়েকটি শারীরিক পরীক্ষা সম্পন্ন হয়েছে। বয়স নির্ধারণের জন্য এক্সরে এবং ধর্ষণের আগে তাকে নেশাজাতীয় ওষুধ খাওয়ানো হয়েছিল কি না সেজন্য ব্লাড ও ইউরিন সংগ্রহ করে মহাখালীতে অবস্থিত রাসায়নিক পরীক্ষাগারে পাঠানো হয়েছে। এছাড়া তার ডিএনএ পরীক্ষার জন্য হাইডেজোনাল সফট সংগ্রহ করা হয়েছে।’
তিনি আরও বলেন, ‘কেমিক্যাল রিপোর্ট, রেডিওলজি রিপোর্ট এবং মাইক্রো-বাইলোজির রিপোর্ট আসার পরে ওই তরুণীর ফিজিক্যাল ফাইন্ডিংস (শারীরিক আলামত) যেগুলো পেয়েছি, সেগুলো মিলিয়ে আমরা চ‚ড়ান্ত মতামত জানাবো।’ তিনি আরও বলেন, ‘তিন-চার সপ্তাহের মধ্যে আমরা রিপোর্টগুলো হাতে পাবো।’
তরুণীর শরীরে ধর্ষণ সংশ্লিষ্ট নির্যাতনের কোনো চিহ্ন রয়েছে কিনা জানতে চাইলে ডা. সোহেল বলেন, ‘মেয়েটি আমাদের ফিজিক্যাল অ্যাসল্টের কথা বলেনি। আমরা তার শরীরেও এমন কিছু পাইনি। তার শরীরে আঘাতের কোনো চিহ্ন নেই।’ এর আগে জন্মদিনের পার্টিতে ডেকে নিয়ে ধর্ষণের অভিযোগ এনে গত ৬ মে বনানী থানায় মামলা করেন এক ছাত্রী। বনানীর রেইনট্রি হোটেলে ধর্ষণের এ ঘটনা সারা দেশে ব্যাপক আলোড়ন তোলে।
পুলিশ ঘটনায় জড়িত আপন জুয়েলার্সের মালিকের ছেলে সাফাত আহমেদ ও তার বন্ধু নাঈম আশরাফসহ পাঁচজনকে গ্রেফতার করে। তারা এখনো কারাগারে আছেন।এ ঘটনার রেশ কাটতে না কাটতেই রাজধানীর অভিজাত এলাকায় আরো একটি ধর্ষণের অভিযোগ পেলো পুলিশ।

Leave a Reply

You must be logged in to post a comment.

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি এইচ, এম রহিমুজ্জামান সুমন
সম্পাদক ও প্রকাশকঃ এস, এম নুরুল্ আমিন সরকার্
নির্বাহী সম্পাদকঃ নাজমুল হুদা পারভেজ
সম্পাদক কর্তৃক সারদা প্রেস, বাজার রোড, কুড়িগ্রাম থেকে মূদ্রিত ও উপজেলা পরিষদ মোড়, চিলমারী, কুড়িগ্রাম থেকে প্রকাশিত।
অফিসঃ উপজেলা পরিষদ মোড়, চিলমারী, কুড়িগ্রাম।
ফোনঃ ০৫৮২৫-৫৬০১৭, ফ্যাক্স: ০৫৮২৪৫৬০৬২, মোবাইল: ০১৭৩৩-২৯৭৯৪৩, ইমেইলঃ jugerkhabor@gmail.com
এই ওয়েবসাইট এর সকল লেখা,আলোকচিত্র,রেখাচ¬িত্র,তথ্যচিত্র যুগেরখবর এর অনুমতি ছাড়া হুবহু বা আংশিক নকল করা সম্পূর্ন কপিরাইট আইনে আইনত দন্ডনীয় অপরাধ।
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত যুগেরখবর.কম – ২০১৩-১৪