আজকের তারিখ- Sat-19-10-2019

প্রাথমিক উপবৃত্তি প্রকল্প বিদেশ ভ্রমনের নামে মানব পাচারের পাঁয়তারা

যুগের খবর ডেস্ক: প্রাথমিক উপবৃত্তি প্রকল্পের (তৃতীয় পর্যায়) অর্থে বিদেশ সফরের নামে মানব পাচারের পাঁয়তারা চলছে। প্রকল্পে কর্মরত বিসিএস ক্যাডার কর্মকর্তাদের বাদ দিয়ে চুক্তি ভিত্তিক খন্ডকালীন নিয়োগ প্রাপ্ত কর্মচারীদের নাম প্রস্তাব করা হয়েছে। আগামী ডিসেম্বরে তাদের চাকরির মেয়াদ শেষ হলেও মন্ত্রীর সফর সঙ্গী হিসেবে অষ্ট্রেলিয়া ও নিউজিল্যান্ড সফরের জন্য নির্ধারণ করা হয়েছে। অভিযোগ রয়েছে, প্রকল্পের পিডি দুর্নীতির মাধ্যমে সম্পদের পাহাড় গড়েছেন। বিনিময়ে ডিপিপি’র (উন্নয়ন প্রকল্প প্রস্তাব) সর্ত লঙ্গন করে চুক্তিভিত্তিক কর্মচারীদের খুশি করতে বিদেশ সফরের প্রস্তাব করেছেন পিডি।
এ ব্যাপারে জানতে চাইলে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. আকরাম-আল-হোসেন আজকালের খবরকে বলেন,‘ বিদেশ সফরের জন্য প্রকল্প থেকে সবে মাত্র নাম প্রস্তাব করা হয়েছে। এখন পর্যন্ত কোন কোন কর্মকর্তা বিদেশ যাবেন তা নির্ধারণ করা হয়নি। খোঁজ খবর নিয়ে নাম চূড়ান্ত করা হবে। ’
সূত্র জানায়, প্রাথমিক শিক্ষার মানোন্নয়ন ও শিক্ষার্থী ঝরে পড়া রোধ করতে উপবৃত্তি প্রকল্প চালু করে। প্রাথমিক উপবৃত্তি প্রকল্প (দ্বিতীয় পর্যায়) ২০১৭ সালের জুনে শেষ হয়। পরে নতুন করে ২০১৯ সালের ডিসেম্বর পর্যন্ত প্রকল্পের মেয়াদ বাড়ানো হয়। প্রকল্পের মূল ব্যয় তিন হাজার ৮৫৫ কোটি ৬৭ লাখ টাকা বাড়িয়ে ছয় হাজার ৯২৩ কোটি ছয় লাখ টাকা নির্ধারণ করা হয়। সুবিধাভোগীর লক্ষ্যমাত্রা এক কোটি ৪০ লক্ষ নির্ধারণ করা হয়।
উপবৃত্তির টাকা রূপালি ব্যাংকের শিওর ক্যাশের মাধ্যমে শিক্ষার্থীদের মধ্যে বিতরণ করা হয়। সার্ভিস চার্জ বাবদ রূপালি ব্যাংককে প্রকল্পের মোট বরাদ্দকৃত অর্থের দেড় শতাংশ দেওয়া হতো। প্রকল্পের টাকায় বিদেশ সফর, প্রশিক্ষণ ও প্রনোদনা সুবিধা নিতে কর্মকর্তারা দেড় শতাংশের পরিবর্তে দুই শতাংশ সার্ভিস চার্জ বাড়িয়ে গত মাসের ২৫ তারিখ রূপালি ব্যাংকের সঙ্গে নতুন চুক্তি করেন।
চুক্তি অনুযায়ী মন্ত্রণালয়, প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতর ও প্রকল্পের কর্মকর্তাদের বিদেশ ভ্রমন করাবে রূপালি ব্যাংক। প্রতিবার ভ্রমনে ব্যাংকের পাঁচজন কর্মকর্তাও প্রকল্পের অর্থে বিদেশ ভ্রম করবেন। প্রকল্পের মেয়াদ শেষ হওয়ার আগে অর্থাৎ আগামী তিন মাসের মধ্যে বিদেশ সফর বাবদ এক কোটি টাকা বরাদ্দ রাখা হয়েছে।
সূত্র আরও জানায়, বরাদ্দকৃত অর্থ খরচ করতে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী মো. জাকির হোসেনের নেতৃত্বে একটি টিম আগামী মাসে অষ্ট্রেলিয়া ও নিউজিল্যান্ড ভ্রমনের কথা রয়েছে। আর সচিবের নেতৃত্বে অপর একটি টিম আফ্রিকার বিভিন্ন দেশ ভ্রমন করবেন। বিদেশ ভ্রমন করতে মন্ত্রণালয়ের অনুমোদনের জন্য এরইমধ্যে প্রকল্পের কর্মকর্তাদের নাম পাঠানো হয়েছে।
মন্ত্রণালয়ে পাঠানো তালিকা সূত্রে জানা গেছে, প্রকল্পে চুক্তিভিত্তিক খন্ডকালীন নিযোগপ্রাপ্ত মনিটরিং অফিসার রাশেদ ইসলাম ও অসীম চক্রবর্তী ও হিসাবরক্ষক খোকন চন্দ্র সুত্রধরসহ চার জনের নাম প্রতিমন্ত্রীর সঙ্গে অষ্ট্রেলিয়া ও নিউজিল্যান্ড সফরের জন্য প্রস্তাব করা হয়েছে। কিন্তু প্রকল্পে কর্মরত বিসিএস ক্যাডার কর্মকর্তা উপ-পরিচালক, সহকারী পরিচালকদের নাম নেই। রূপালি ব্যাংকের সঙ্গে চুক্তি অনুযায়ী প্রকল্পের কর্মকর্তাদের বিদেশ ভ্রমন করতে হলে অবশ্যই সরকারি চাকরিজীবী হতে হবে। কিন্তু প্রস্তাবকৃত কর্মচারীরা সরকারি চাকরীজীবী নন; তারা চুক্তিভিত্তিক খন্ডকালিন নিয়োগপ্রাপ্ত। চুক্তি অনুযায়ী আগামী ডিসেম্বরে প্রকল্পের মেয়াদ শেষ হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে তাদের চাকরি শেষ হয়ে যাবে। এমনকি তাদের সরকারি পাসপোর্ট নেই।
সূত্র জানিয়েছে, সাধারণ পার্সপোর্ট নিয়ে তারা উন্নত দুটি দেশ ভ্রমন শেষে আর দেশে ফিরবেন না। যে কোন একটি দেশে তারা থেকে যাবেন। কারণ আগামী তিন মাস পরে তাদের চাকরির মেয়াদ শেষ হয়ে যাবে। প্রকল্পের মেয়াদও আর বাড়ানো হবে না। পিইডিপি-৪  এর মাধ্যমে শিক্ষার্থীদের উপবৃত্তি দেওয়া হবে।
সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, যাদের নাম বিদশে সফরের জন্য প্রস্তাব করা হয়েছে তারা নীতিনির্ধারনী পর্যায়ের কর্মকর্তা না। ডিসেম্বরের পর তাদের চাকরি না থাকায় সরকারি টাকায় বিদেশ সফরের অভিজ্ঞতা কাজে লাগবে না। শুধু শুধু সরকারের বিপুল পরিমান অর্থ নষ্ট হবে। আর মন্ত্রীর সঙ্গে চুক্তিভিত্তিক কর্মচারীদের অষ্ট্রেলিয়া ও নিউজিল্যান্ডের মতো দুটি দেশ ভ্রমন দেশের ভাবমূর্তি ক্ষুন্ন হবে।
সংবাদটি শেয়ার করুন:
  •   
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি এইচ, এম রহিমুজ্জামান সুমন
সম্পাদক ও প্রকাশকঃ এস, এম নুরুল্ আমিন সরকার্
নির্বাহী সম্পাদকঃ নাজমুল হুদা পারভেজ
সম্পাদক কর্তৃক সারদা প্রেস, বাজার রোড, কুড়িগ্রাম থেকে মূদ্রিত ও উপজেলা পরিষদ মোড়, চিলমারী, কুড়িগ্রাম থেকে প্রকাশিত।
অফিসঃ উপজেলা পরিষদ মোড়, চিলমারী, কুড়িগ্রাম।
ফোনঃ ০৫৮২৫-৫৬০১৭, ফ্যাক্স: ০৫৮২৪৫৬০৬২, মোবাইল: ০১৭৩৩-২৯৭৯৪৩, ইমেইলঃ jugerkhabor@gmail.com
এই ওয়েবসাইট এর সকল লেখা,আলোকচিত্র,রেখাচিত্র,তথ্যচিত্র যুগেরখবর এর অনুমতি ছাড়া হুবহু বা আংশিক নকল করা সম্পূর্ন কপিরাইট আইনে আইনত দন্ডনীয় অপরাধ।
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত যুগেরখবর.কম – ২০১৩-১৯
Design & Developed By ( Nurbakta Ali )