কাল থেকে প্রচারণা শুরু

স্টাফ রিপোর্টার, ঢাকা অফিস : পৌর নির্বাচনে অংশ নেওয়া প্রার্থীরা আগামীকাল বুধবার থেকে প্রচারণা চালাতে পারবেন বলে জানিয়েছেন নির্বাচন কমিশনার মো. শাহনেওয়াজ। গতকাল সোমবার ইসি কার্যালয়ে সাংবাদিকদের সাথে আলাপকালে তিনি বলেন, আইন অনুযায়ী ৯ তারিখ থেকে প্রচারণা চালাতে পারবে। কে কীভাবে করবে (প্রতীক নিয়ে) এটা তারা নিজেরা ঠিক করে নেবে। আমাদের কথা নির্বাচন সুষ্ঠু করা, নির্বাচনে যেন বিধি ভঙ্গ না হয়- এটা আমরা দেখব। ৯ ডিসেম্ব্বর বুধবার থেকে প্রচারে বাধা না থাকলেও ১৩ ডিসেম্বর মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারের পর প্রতীক বরাদ্দ পাবে দলীয় মেয়র ছাড়া অন্যান্য প্রার্থীরা। শাহনেওয়াজ বলেন, ৯ ডিসেম্ব্বর থেকে দলীয় প্রার্থীরা প্রতীক নিয়ে প্রচারণা চালাবেন। আর আমি মনে করি, কয়েকদিন স্বতন্ত্র ও কাউন্সিলর প্রার্থীরা প্রতীক ছাড়া প্রচারণা চালালে তাদের কোনো ক্ষতি হবে না। এদিকে পৌরসভা নির্বাচনে তিন পদে মোট ৮৬৩ জনের মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়েছে। এর মধ্যে মেয়র পদে ১৩৫, সাধারণ কাউন্সিলর পদে ৫৭২ এবং সংরক্ষিত কাউন্সিলর পদে ১৫৬ জন রয়েছেন। ফলে তিন পদে মোট বৈধ প্রার্থীর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১২ হাজার ৬৪২। এর মধ্যে মেয়র পদে ৯৬১, কাউন্সিলর পদে ৯ হাজার ১৬৯ এবং সংরক্ষিত পদে ২ হাজার ৫১২ জন প্রার্থী চূড়ান্ত প্রতিদ্বন্দ্বিতার সুযোগ পেলেন। এর সাথে বাতিলকৃতদের মধ্য থেকে আপিলের পর যারা প্রার্থীতা ফিরে পাবেন তাদের সংখ্যা যোগ হবে। ৫ ও ৬ ডিসেম্বর বাছাই শেষে গতকাল সোমবার ২৩৪ পৌরসভার এ তথ্য জানান ইসির নির্বাচন সমন্বয় ও সহায়তা শাখার সিনিয়র সহকারী সচিব রাজীব আহসান। এসময় তিনি বলেন, নিজস্ব সফটওয়ার সিএমএস-এর মাধ্যমে মনোনয়নপত্র বাতিলের তথ্য মাঠ থেকে পাঠানো হয়েছে। এসব তথ্য সংগ্রহ করে দেখা গেছে মেয়র পদে ১৩৫ জনের মনোনয়ন বাতিল হয়েছে। সাধারণ কাউন্সিলর পদে ৫৭২ জনের এবং সংরক্ষিত কাউন্সিলর পদে ১৫৬ জনের মনোনয়নপত্র অবৈধ হয়েছে। এ বিষয়ে ইসির উপ সচিব সামসুল আলম জানান, সব প্রার্থীর তথ্য সংগ্রহ করা হয়েছে। যাদের মনোনয়নপত্র বাতিল হয়েছে বা অবৈধ হয়েছে তারা তিন দিনের মধ্যে আপিল কর্তৃপক্ষের কাছে আপিল করার সুযোগ পাবেন। ইসির সমন্বয় শাখার তথ্য অনুযায়ী, ১৩ হাজার ৫০৫ প্রার্থী মনোনয়ন জমা দিয়েছিলেন। বাছাইয়ে তিন পদে ৮৬৩ জনের প্রার্থিতা বাতিল হওয়ার পর বৈধ প্রার্থী রয়েছেন ১২ হাজার ৬৪২ জন। আপিল নিষ্পত্তির পর বৈধ প্রার্থীদের মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারের শেষ সময় ১৩ ডিসেম্বর। এর পর চূড়ান্ত প্রার্থীরা নিজস্ব প্রতীক নিয়ে নির্বাচনী মাঠে নামবেন। এবার পৌর নির্বাচনে মেয়র পদে ২০টি দলীয় ও স্বতন্ত্র প্রার্থী মিলে ১০৯৬ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র জমা দেন। সংরক্ষিত পদে ২ হাজার ৬৬৮ ও সাধারণ কাউন্সিলর পদে মনোনয়ন জমা দেন ৯ হাজার ৭৪১ জন প্রার্থী। আগামী ৩০ ডিসেম্বর দেশের ২৩৫ পৌরসভায় নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। এবারই প্রথম মেয়র পদে দলীয়ভাবে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। ১৩ ডিসেম্বর মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারের শেষ সময় রয়েছে। ১৪ ডিসেম্বর প্রতি প্রার্থীদের মধ্যে প্রতীক বরাদ্দ দেয়া হবে। ১৯ ডিসেম্বর ভোটের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ বিষয়- আইন-শৃঙ্খলা সংক্রান্ত বৈঠক অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে। নির্বাচনে প্রায় ৩,৫৮২টি ভোটকেন্দ্রে ভোটগ্রহণ করা হবে। এতে পুরুষ ভোটার প্রায় ৩৫ লাখ ৮৬,৩৫৬ জন এবং নারী ভোটার ৩৫ লাখ ৭৬,০৪০ জন। ভোটগ্রহণে ৬১,১৪৩ জন কর্মকর্তা নিয়োজিত থাকবেন।

Leave a Reply

You must be logged in to post a comment.

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি এইচ, এম রহিমুজ্জামান সুমন
সম্পাদক ও প্রকাশকঃ এস, এম নুরুল্ আমিন সরকার্
নির্বাহী সম্পাদকঃ নাজমুল হুদা পারভেজ
সম্পাদক কর্তৃক সারদা প্রেস, বাজার রোড, কুড়িগ্রাম থেকে মূদ্রিত ও উপজেলা পরিষদ মোড়, চিলমারী, কুড়িগ্রাম থেকে প্রকাশিত।
অফিসঃ উপজেলা পরিষদ মোড়, চিলমারী, কুড়িগ্রাম।
ফোনঃ ০৫৮২৫-৫৬০১৭, ফ্যাক্স: ০৫৮২৪৫৬০৬২, মোবাইল: ০১৭৩৩-২৯৭৯৪৩, ইমেইলঃ jugerkhabor@gmail.com
এই ওয়েবসাইট এর সকল লেখা,আলোকচিত্র,রেখাচ¬িত্র,তথ্যচিত্র যুগেরখবর এর অনুমতি ছাড়া হুবহু বা আংশিক নকল করা সম্পূর্ন কপিরাইট আইনে আইনত দন্ডনীয় অপরাধ।
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত যুগেরখবর.কম – ২০১৩-১৪