আজকের তারিখ- Tue-20-02-2024

পাকিস্তানে নির্বাচন ১৪৬ আসনের মধ্যে ৬০টিতে জয়ী ইমরান সমর্থিত প্রার্থীরা

আর্ন্তজাতিক ডেস্ক: পাকিস্তানে সাধারণ নির্বাচনে ২৬৫ আসনের মধ্যে ১৪৬ আসনের ফলাফল ঘোষণা করা হয়েছে। আল জাজিরার তথ্য অনুযায়ী বেসরকারি ফলাফলে ৬০টি আসনে জয়ী হয়ে এগিয়ে আছেন ইমরান খানের দল পাকিস্তান তেহরিক-ই-ইনসাফ (পিটিআই) সমর্থিত স্বতন্ত্র প্রার্থীরা। কাছাকাছি অবস্থানে রয়েছেন নওয়াজ শরীফের দল পাকিস্তান মুসলিম লীগ-নওয়াজে (পিএমএল-এন)। দলটি পেয়েছে ৪৩টি আসন। বিলাওয়াল ভুট্টো জারদারির দল পাকিস্তান পিপলস পার্টির (পিপিপি) প্রার্থীরা জিতেছেন ৩৭ আসনে। আর ৬টি আসন পেয়েছে অন্যান্যরা।
আজ শুক্রবার সকাল থেকেই পাকিস্তানসহ বিভিন্ন গণমাধ্যমে ইমরান খানের দল পিটিআই স্বতন্ত্র প্রার্থীদের এগিয়ে থাকার খবর আসতে থাকে। অন্যদিকে, নওয়াজ শরিফের দল পিএমএল-এন পিছিয়ে থাকার খবর আসে। আইনি প্রতিবন্ধকতার কারণে নির্বাচনে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে অংশ নিয়েছে ইমরানের সমর্থকরা।
নির্বাচনের ভোটগ্রহণ শেষ হওয়ার ১২ ঘণ্টা পর ফল ঘোষণা শুরু হয়। দীর্ঘ এই সময় ধরে ফল আটকে রাখায় ও স্পষ্ট করে কিছু না বলায় ফলাফলের বিশ্বাসযোগ্যতা নিয়ে নানা দিক থেকে প্রশ্ন উঠছে। নির্বাচন পর্যবেক্ষকেরা বলছেন, পাকিস্তানের অতীতের নির্বাচনগুলোর তুলনায় এবারের ফল ঘোষণায় এমন দেরি অস্বাভাবিক।
পাকিস্তানে জাতীয় পরিষদে ২৬৬ আসনে সরাসরি ভোট হয়। নির্বাচনের আগে দুর্বৃত্তের গুলিতে এক প্রার্থী নিহত হওয়ায় একটি আসনে ভোট স্থগিত করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার ব্যাপক কারচুপির অভিযোগের মধ্যে মোবাইলফোন ও ইন্টারনেট পরিষেবা বন্ধ করে ভোটগ্রহণ করা হয়েছে। এরপর শুরু হয় ভোটগণনা। দেশটির বর্তমানে সবচেয়ে জনপ্রিয় রাজনীতিবিদ ইমরান খানকে কারাগারে বন্দি রেখে অনুষ্ঠিত এ নির্বাচনে সেনাবাহিনীর হস্তক্ষেপ ছিল লাগামহীন।
ইমরান এবং পিটিআই পার্টির ওপর সামরিক বাহিনীর নিপীড়নের কারণে কেন্দ্রে কম ভোটার উপস্থিতির পূর্বাভাস দিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা। নির্বাচনে ভোটার ছিল ১২ কোটি ৮০ লাখ।
ভোটে পাকিস্তান মুসলিম লীগ-নওয়াজ (পিএমএল-এন) সবচেয়ে বেশি আসন জিতবে বলে ধারণা করেছিলেন বিশ্লেষকরা। তারা বলছেন, ৭৪ বছর বয়সী নওয়াজের ওপর জেনারেলদের আশীর্বাদ রয়েছে। লাহোরের একটি কেন্দ্রে মেয়ে মরিয়মকে নিয়ে ভোটদানের পর সাংবাদিকদের নওয়াজ শরিফ বলেন, ভোট অবশ্যই স্বচ্ছ হচ্ছে।
নির্বাচনের স্বচ্ছতা নিয়ে ব্যাপক উদ্বেগের মধ্যেই কর্তৃপক্ষ ভোট শুরুর ঠিক আগে ‘আইন-শৃঙ্খলা বজায় রাখতে’ সারাদেশে মোবাইল ফোন পরিষেবা স্থগিত করে দেয়। এতে কারচুপির আশঙ্কা আরও জোরালো হয়েছে। পিটিআই একে ‘কাপুরুষোচিত কাণ্ড’ বলে মন্তব্য করেছে।
নির্বাচনের নিরাপত্তা রক্ষায় সাড়ে ৬ লাখের বেশি সেনা, পুলিশ এবং আধাসামরিক বাহিনীর সদস্য মোতায়েন করা হয়। তা সত্ত্বেও বৃহস্পতিবার ভোটের দিনেও দুটি পৃথক হামলায় অন্তত সাতজন কর্মকর্তা নিহত হয়েছেন। এর আগের দিন বুধবার প্রার্থীদের অফিসের বাইরে দুটি বোমা বিস্ফোরণে অন্তত ২৮ জন নিহত এবং ৩০ জনেরও বেশি আহত হয়েছেন।
পারমাণবিক অস্ত্রধারী বিশ্বের পঞ্চম বৃহত্তম জনবহুল দেশটিতে জাতীয় এবং চারটি প্রাদেশিক পরিষদের এ নির্বাচনে প্রার্থী ছিলেন প্রায় ১৮ হাজার। জাতীয় পরিষদের ২৬৫টি আসনে লড়েছেন পাঁচ হাজারের বেশি প্রার্থী।
পোলিং গ্রুপ গ্যালাপ পাকিস্তানের নির্বাহী পরিচালক বিলাল গিলানি বলেন, পাকিস্তানের নির্বাচনের ইতিহাসের সঙ্গে কারচুপির অভিযোগ অঙ্গাঙ্গীভাবে জড়িত। এটি একটি সামরিক বাহিনী পরিচালিত গণতন্ত্র।
ইমরান খানকে আদিয়ালা জেল থেকে পোস্টাল ব্যালটে ভোটের অনুমতি দেওয়া হয় বলে পিটিআইর এক কর্মকর্তা জানিয়েছেন। প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রীকে গত সপ্তাহে রাষ্ট্রদ্রোহ, দুর্নীতি এবং অবৈধ বিয়ের অভিযোগে দীর্ঘ কারাদণ্ড দেওয়া হয়।
বিশ্লেষকরা বলছেন, তারপরও সেনাবাহিনী খুবই উদ্বিগ্ন ছিল পিটিআই প্রার্থীরা ভোটের ফলাফলে নির্ধারক ফ্যাক্টর হয়ে উঠতে পারেন। কারচুপি ঠেকাতে পিটিআই নেতারা দলের সমর্থকদের ভোটের ফলের লিখিত কপি ছাড়া কেন্দ্র ত্যাগ না করার আহ্বান জানান।
সংবাদটি শেয়ার করুন:
  •   
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

সম্পাদক ও প্রকাশকঃ এস, এম নুরুল আমিন সরকার
সম্পাদক কর্তৃক সারদা প্রেস, বাজার রোড, কুড়িগ্রাম থেকে মূদ্রিত ও মাচাবান্দা নামাচর, চিলমারী, কুড়িগ্রাম থেকে প্রকাশিত।
অফিসঃ উপজেলা পরিষদ মোড়, চিলমারী, কুড়িগ্রাম।
ঢাকা অফিসঃ শ্যাডো কমিউনিকেশন, ৮৫, নয়া পল্টন (৬ষ্ঠ তলা), ঢাকা- ১০০০।
ফোনঃ ০৫৮২৪-৫৬০৬২, মোবাইল: ০১৭৩৩-২৯৭৯৪৩,
ইমেইলঃ jugerkhabor@gmail.com, smnuas1977@gmail.com
এই ওয়েবসাইট এর সকল লেখা,আলোকচিত্র,রেখাচিত্র,তথ্যচিত্র যুগেরখবর এর অনুমতি ছাড়া হুবহু বা আংশিক নকল করা সম্পূর্ন কপিরাইট আইনে আইনত দন্ডনীয় অপরাধ।
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত যুগেরখবর.কম – ২০১৩-২০২৪
Design & Developed By ( Nurbakta Ali )